,


অ্যাংরি বার্ড কথা বলবে কপিল শর্মার কণ্ঠে
অ্যাংরি বার্ড কথা বলবে কপিল শর্মার কণ্ঠে

অ্যাংরি বার্ড কথা বলবে কপিল শর্মার কণ্ঠে

ডেস্ক রিপোর্টারঃ গতকাল শুক্রবারের কথা। ভারতের জনপ্রিয় কমেডিয়ান কপিল শর্মার ইনস্টাগ্রামে দেখা গেল একটা ভিডিও। ভিডিওর ক্যাপশনে লেখা, ‘বন্ধুরা, দেখো, রেড তোমাদের কিছু বলবে।’

রেড কে চিনলেন না? ওই যে অ্যাংরি বার্ডসের সেই রাগী লাল পাখিটা। দেখা গেল ভিডিওতে রেড বলছে, ‘হাই, আমাকে তো তোমরা ভালো করেই চেনো। আমার নিজেকে পরিচিত করানোর কিছু নেই। আমি ব্রাড পিটের থেকেও বেশি জনপ্রিয়। আমি ভাবছিলাম, “দ্য অ্যাংরি বার্ডস মুভি টু” তে কে আমার কণ্ঠ দেবে। আমার তো কপিল শর্মাকে পছন্দ। যদিও সে খুবই ব্যস্ত।’ এরপর ভিডিওতে দেখা যায় কপিল শর্মাকে। যিনি জানান, এবার অ্যাংরি বার্ডসের মুখে শোনা যাবে তাঁর কণ্ঠ।

ইনস্টাগ্রামে এই ভিডিওটি এখন পর্যন্ত দেখা হয়েছে ১২ লাখ ৩৮ হাজারবার। আর হাজার হাজার ভক্ত সেখানে মন্তব্য করে জানিয়েছেন, রেডের চরিত্রে কপিল শর্মার থেকে ভালো কেউ নাকি আর হয়-ই না। তাঁর ব্যক্তিত্ব নাকি রেডের মতোই। কপিল শর্মাও বিষয়টির সঙ্গে একমত পোষণ করেছেন।

দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে কপিল শর্মা বলেছেন, ‘রেড একটা হিরো। কিন্তু সময়ের সঙ্গে তাঁকে অনেক জটিল পরিস্থিতিতে জড়িয়ে পড়তে হয়। আর যাঁরা আমার ইতিহাস জানেন, তাঁরা একমত হবেন যে আমিই রেড।’ তিনি আরও বলেন, যে পশ্চিমা দেশগুলোতে চিত্রনাট্যের সঙ্গে মিলিয়ে আগে ভয়েস আর্টিস্টদের গলার স্বর নেওয়া হয়। পরে সেই স্বরের সঙ্গে মিলিয়ে চরিত্রের গ্রাফিকস করা হয়। কিন্তু এখানে উল্টো। আমাকে পর্দার রেডের সঙ্গে মিলিয়ে কণ্ঠ দিতে হবে। তবে সুবিধা হচ্ছে, কীভাবে কীভাবে যেন আমি অনেকটা রেডের মতোই।

যক্তরাষ্ট্রে ‘অ্যাংরি বার্ডস টু’ মুক্তি পাবে আগস্টের ১৪ তারিখে। আর ভারতের দর্শকদের জন্য সনি পিকচার্স এন্টারটেইনমেন্ট ইন্ডিয়া ছবিটি মুক্তি দেবে হিন্দি, তামিল ও তেলেগু ভাষায়। হিন্দি ভাষার ছবিতে রেড কথা বলবে কপিল শর্মার গলায়।

কপিল শর্মাকে কে না চেনে। ভারতের ১৩৪ কোটি জনগণকে হাসানোর দায়িত্ব নিয়েছেন তিনি নিজের কাঁধে। একাধিক টিভি শো ছাড়াও কপিলকে দেখা গেছে ‘কিস কিস কো প্যায়ার কারু’ ও ‘ফিরাঙ্গি’ ছবিতে। এই দুটো চলচ্চিত্রে তাঁর চরিত্র ঘুরেফিরে তাঁর মতোই। কিন্তু ‘অ্যাংরি বার্ডস টু’তে নাকি এক নতুন কপিল শর্মাকে পাওয়া যাবে। কপিল বলেছেন, ‘প্রযোজকেরা (সোনি পিকচার্স এন্টারটেইনমেন্ট ইন্ডিয়া) আমাকে ভরসা করেছে। যে আমি গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্তগুলোতেও রেডের রসবোধ ধরে রাখতে পারব। এমন সব সময় আছে যখন রেড খুবই রেগে যায়, কিন্তু দর্শককে সেই মুহূর্তেও হাসাতে হবে।’

অবশ্য সময়টা এখন কপিল শর্মার। দুঃসময় পেছনে ফেলে দিন ফিরেছে তাঁর। একসময় মাতাল অবস্থায় সহকর্মীদের সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করার অভিযোগ উঠেছিল। দীর্ঘদিনের প্রেমিকা গিন্নি ছত্রাতও ‘অনেক হয়েছে, আর না’ বলে দাঁড়ি টেনেছিলেন।

২০১৮ সালের ১২ ডিসেম্বর সব অভিমান ভুলে কপিল শর্মাকেই বিয়ে করেছেন গিন্নি। তবে শর্ত ছিল, কলঙ্কমুক্ত ক্যারিয়ার গড়তে হবে আর মদ্যপান করা যাবে না। এসব শর্ত পূরণ করেই বিয়ে করেছেন কপিল। মদ্যপান পুরোপুরি ছেড়েছেন। চিকিৎসার জন্য বেঙ্গালুরুর একটি আয়ুর্বেদিক ক্লিনিকে তাঁকে ভর্তি করা হয়েছিল। তিনি চিকিৎসায় এত ভালোভাবে সাড়া দিয়েছেন যে এই রিহ্যাব সেন্টার থেকে নির্ধারিত সময়ের ২৮ দিন আগেই ছেড়ে দেওয়া হয় তাঁকে। আর প্রথম শর্তটির ব্যাপারে তিনি মনোরোগ বিশেষজ্ঞ ও ক্যারিয়ার বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে আলোচনা করেছেন। তাঁদের পরামর্শ মেনে চলছেন।

বিয়ের সাত মাস পর জানা গেল, বাবা হতে যাচ্ছেন কপিল শর্মা। আপাতত স্ত্রীকে নিয়ে কানাডাতে চমৎকার সময় কাটছে তাঁর। বাবা হওয়ার সুসংবাদও জানিয়েছেন নিজেই। বলেছেন, এখন পুরোটা সময় স্ত্রীর পাশে থেকে তাঁর আর সন্তানের দেখভাল করতে চান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


এই বিভাগের আরো

সর্বশেষ

বিশ্বজুড়ে করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) আপডেট

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
৪৪,৬০৮
সুস্থ
৯,৩৭৫
মৃত্যু
৬১০

বিশ্বে

আক্রান্ত
৬,১৭২,৪৪৮
সুস্থ
২,৭৪৪,০৪৪
মৃত্যু
৩৭১,১৮৬

বাংলাদেশে করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) আপডেট

সর্বশেষ (গত ২৪ ঘন্টার রিপোর্ট)
আক্রান্ত
মৃত্যু
সুস্থ
পরীক্ষা
১,৭৬৪
২৮
৩৬০
৯,৯৯৭
সর্বমোট
৪৪,৬০৮
৬১০
৯,৩৭৫
২৯৭,০৬৪
%d bloggers like this: