,


রাজারহাটে কলেজ শিক্ষকের আত্নহত্যা নিয়ে ধুম্রজাল

রাজারহাটে কলেজ শিক্ষকের আত্নহত্যা নিয়ে ধুম্রজাল

রাজারহাট (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধিঃ কুড়িগ্রামের রাজারহাট থানা পুলিশ কলেজ শিক্ষক ইন্দ্রজিৎ রায়(৪৮) এর লাশ উদ্ধার করেছে। ওই শিক্ষকের গলায় গামছা পেছানো জানালার গ্রিলে লাশ ঝুলন্ত অবস্থায় ছিল। তাঁর এ মৃত্যুকে রহস্যজনক বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন।

২৭এপ্রিল দুপুর ২ ঘটিকার দিকে রাজারহাট থানার অদুরে চাকিরপশার তালুক গ্রামের নিজ বাসায় এ ঘটনা ঘটে।  কলেজ শিক্ষক ইন্দ্রজিতের লাশ ময়না তদন্ত শেষে পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসীরা জানান, ওই দিন দুপুরে ওই বাসায় ইন্দ্রজিতের কন্যা তৃতীয় শ্রেণীর ছাত্রী স্বর্ণ রায় স্কুল থেকে বাসায় ফিরে তাঁর বাবার গলায় ফাঁস দেয়া দেখে চিৎকার দিলে বাড়ীতে কাজ করা দিনমজুর কবির উদ্দিন ছুটে এসে গলার ফাঁস থেকে কেটে দেয়। পরে পথচারী ও এলাকবাসীরা ছুটে আসে।

খবর পেয়ে রাজারহাট থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে লাশের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করে। এছাড়া প্রাথমিকভাবে তাঁর গলায় দাগ ছাড়া শরীরে কোন আঘাতের চিহৃ ছিল না বলে থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) মনিবুর রহমান জানিয়েছেন।

ইন্দ্রজিত রায় কুড়িগ্রাম মজিদা আদর্শ মহাবিদ্যালয়ের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক ছিলেন। তিনি উপজেলার নাজিমখান ইউনিয়নের বাইশার পাড় গ্রামের মৃত নবিন্দ্র সরকারের পুত্র বলে জানা গেছে। এ ব্যাপারে রাজারহাট থানায় একটি ইউডি মামলা দায়ের হয়েছে।

রাজারহাট থানার অফিসার ইনচার্জ কৃষ্ণ কুমার সরকার জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কুড়িগ্রাম মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

রবিবার ময়না তদন্ত শেষে লাশ পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে।ময়না তদন্তের রিপোর্ট পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


এই বিভাগের আরো

%d bloggers like this: