,


ছেলে মেয়ে নয়, সব শিশুদের জন্য চাই সমঅধিকার বগুড়ায় মীনা দিবস পালিত

ছেলে মেয়ে নয়, সব শিশুদের জন্য চাই সমঅধিকার বগুড়ায় মীনা দিবস পালিত

কাহালু (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ মীনা একটি প্রতিকী চরিত্র। সে একজন গ্রামের মেয়ে। এ কার্টুনের মাধ্যমে শিশুদের আধিকার, শিক্ষা, সাংস্কৃতি, বিনোদন, শারীরিক ও মানসিক ভাবে বেড়ে ওঠার চিত্র ফুটে উঠেছে।

মীনা কার্টুন দেখে বিশেষ করে শিশুরা মীনার আদর্শ, শিক্ষা, তার রূপরেখা ধারণ করছে। আমরা দেখতে পাই অধিকাংশ অনুন্নত দেশের শিশুরা দারিদ্রতার করণে লেখাপড়া করতে পারে না, কিন্তু মীনা এ বাধা থেকে বেরিয়ে এসে তার পাখি মিঠু, ছোট ভাই রাজু ও খেলার সাথীদের নিয়ে স্কুলে যাওয়ার জন্য অন্যদের সচেতন করে, অন্যের ভালো কাজে সাহয্য করে। আজকের এই মীনা দিবসে শিশুরা মীনার শিক্ষামূলক কর্মকান্ড সম্পর্কে অবগত হচ্ছে।

মীনা কার্টুনে মীনা সময়মত স্কুলে যায়, বন্ধুদের সঙ্গে খেলাধুলা করে, পরিবারের বিভিন্ন কাজে সহযোগীতা করে, অন্যের বিপদে সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসে। মীনার টিয়া পাখি মিঠু আর ছোট ভাই এর নাম রাজু। কার্টুনটি শিশুদের অধিক প্রিয় কারণ এখানে মীনার অনেক বুদ্ধিমত্তা ও সাহসিকতা দেখা গিয়েছে।

বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো আজ সোমবার বাংলাদেশে সব শিশুদের সম অধিকার প্রতিষ্ঠার লক্ষে সার্কের ঘোষণা মতো ২৪ সেপ্টেম্বর দিনটিকে মীনা দিবস হিসেবে পালন করা হচ্ছে। এ দিনটি মিনার জন্মদিন হিসেবেও পালন করা হয়।

পৌর মেয়র, সহকারী উপজেলা শিক্ষা অফিসার, বিভিন্ন বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষক-শিক্ষিকা সহ বিভিন্ন প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীরা।

মীনা দিবস উপলক্ষ্যে কাহালু উপজেলায় ১১৪টি প্রথমিক বিদ্যলয়ে গত অর্থবছরে প্রায় ১৪লক্ষ টাকা ব্যায়ে ঠিফিন বক্স বিতরণ হয়েছে। তারা এই বক্সে করে ঠিফিন নিয়ে আসে, এর মাধ্যমে আমরা নিশ্চত করেছি যে যেসকল শিশুরা আগে স্কুল না করে চলে যেত তা আর হচ্ছে না। তারা অত্যন্ত নির্বিঘ্নে পড়াশোনা করছে।

বাংলাদেশে প্রথম ১৯৯৫ সালে বিটিভিতে মীনা কার্টুন দেখানো শুরু হয়েছিলো। তারপর থেকে বাংলাদেশের শিশু-বৃদ্ধ প্রত্যেকের কাছেই মিনা দারুণ জনপ্রিয় হয়ে ওঠে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


এই বিভাগের আরো

%d bloggers like this: