,


ক্যাটরিনার ‘এয়ারপোর্ট লুক’!

ক্যাটরিনার ‘এয়ারপোর্ট লুক’!

বিনোদন ডেস্কঃ তাঁর জন্ম হংকংয়ে। ১৯৮৩ সালের ১৬ জুলাই। জন্মের কিছুদিন পর পরিবারসহ তাঁরা চলে যান চীনে। সেখান থেকে জাপানে। এভাবেই তাঁর বয়স ৮ হলো। তখন তাঁরা জাহাজে চড়ে জাপান থেকে ফ্রান্সে যান। এরপর সুইজারল্যান্ড, পোল্যান্ড, জার্মানি, বেলজিয়ামসহ ইউরোপের অনেক দেশে যান। সেই দেশগুলোতে মাত্র কয়েক মাস করে থেকেছেন। তাঁর ভারতীয় বাবা আর ইংরেজ মায়ের বিচ্ছেদের পর হাওয়াই থেকে মায়ের জন্মস্থান লন্ডনে অস্থায়ীভাবে ‘স্থায়ী’ হন।

এরপর একদিন মডেল হওয়ার স্বপ্ন নিয়ে চলে যান বাবা মোহাম্মদ কাইফের শহর মুম্বাইয়ে। যদিও হিন্দি ভাষা নিয়ে তাঁকে যথেষ্ট সংগ্রাম করতে হয়েছে। শুধু মডেলিংই নয়, চলচ্চিত্রেও সাফল্যের মুখ দেখেন। এখন তিনি বলিউডের সবচেয়ে বেশি পারিশ্রমিক পাওয়া অভিনেত্রীদের একজন। ২০০৮ থেকে ২০১০ সাল পর্যন্ত টানা তিন বছর ‘ইস্টার্ন আই’ সাময়িকীর পাঠকেরা তাঁকে এশিয়ার সবচেয়ে আবেদনময়ী নারী বলে ঘোষণা করেছে। পৃথিবীর নানা দেশে থেকেছেন বলেই কি না, তাঁর ফ্যাশন সেন্স এককথায় আন্তর্জাতিক। তাঁর ফ্যাশন দেখে আরেক বলিউড তারকা দীপিকা পাডুকোনও বলতে বাধ্য হয়েছেন, ‘টু মাচ হট!’ আলিয়া ভাটের মতে, তিনি বলিউডের এ সময়ের সবচেয়ে ফ্যাশন সচেতন তারকা।

বলিউডের এই তারকা ক্যাটরিনা কাইফ। এই ফ্যাশন আইকন শিগগিরই বের করতে যাচ্ছেন তাঁর ফ্যাশন ব্র্যান্ড। আর আগে তাঁর ‘এয়ারপোর্ট লুক’ও সবাইকে অবাক করেছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে হালকা নীল রঙের ডেনিম জিনসের সঙ্গে সাদা টি-শার্ট আর তার ওপর চাপানো বুকখোলা ডেনিম শার্টে পাপারাজ্জিদের ক্যামেরায় ধরা দিলেন স্নিগ্ধ এই ফ্যাশন আইকন। চোখে রোদচশমা আর পায়ে সাদা স্নিকার তাঁর এয়ারপোর্ট লুককে যথাযথ করেছে। এই পোশাক আরও একবার ভক্ত আর সমালোচকদের বাধ্য করেছে ক্যাটরিনার ফ্যাশন সেন্সের বন্দনায়।

অন্যদিকে ‘ভারত’ ছবিতে বড় পর্দায় সালমান-ক্যাটরিনার প্রেমে মজেছে দর্শক, সমালোচকদের কাছ থেকেও কুড়িয়েছে প্রশংসা। ১০০ রুপি খরচ করে বানানো এই ছবি ইতিমধ্যে ঢুকে পড়েছে ৩০০ কোটির ক্লাবে। এর আগে ‘জিরো’ ছবি বক্স অফিসে গোল্লা পেলেও ববি কুমারীর চরিত্রে ক্যাটরিনা কাইফের অভিনয় জয় করেছে সমালোচকদের হৃদয়।

ক্যাটরিনা এখন ব্যস্ত সময় পার করছেন রোহিত শেঠি পরিচালিত ‘সূর্যবংশী’ ছবির শুটিংয়ে। এই ছবিতে তিনি অক্ষয় কুমারের স্ত্রী। অক্ষয় কুমারের ছবি দিয়েই বলিউডে পরিচিতি পান ক্যাটরিনা। বলিউডের জগতে অক্ষয়ের কাছেই নাকি সবচেয়ে বেশি ঋণ ক্যাটরিনার। একাধিকবার প্রকাশ্যে সে ঋণ স্বীকারও করেছেন। অনেক দিন পর পুরোনো সহকর্মীর সঙ্গে জুটি বাঁধতে পেরে যারপরনাই উচ্ছ্বসিত ক্যাটরিনা।

অক্ষয় এবং ক্যাটরিনা ছাড়া এই ছবিতে আরও দেখা যাবে সিকান্দার খের, ভিভান ভাটেনা, নীনা গুপ্তা ও সুনীল গ্রোভারের মতো অভিনয়শিল্পীদের। তা ছাড়া অল্প সময়ের জন্য ডিসিপি এবং এসিপি চরিত্রে দেখা দেবেন অজয় দেবগন ও রণবীর সিং। সবকিছু ঠিক থাকলে ২০২০ সালের ২৭ মার্চ মুক্তি পাবে করণ জোহরের ধর্মা প্রোডাকশনস ও কেপ অব গুড হোপ ফিল্মজ প্রযোজিত ‘সূর্যবংশী’।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


এই বিভাগের আরো

%d bloggers like this: