,


আফ্রিকার সেরা ঠিক করে দিল অদ্ভুত গোল
আফ্রিকার সেরা ঠিক করে দিল অদ্ভুত গোল

আফ্রিকার সেরা ঠিক করে দিল অদ্ভুত গোল

ডেস্ক রিপোর্টারঃ আফ্রিকান কাপ অব নেশনসের ফাইনালে সেনেগালকে ১-০ গোলে হারিয়ে শিরোপা জিতেছে আলজেরিয়া

ফাইনালের শুরুটাই চমকজাগানিয়া। ৭৯ সেকেন্ডের মাথায় গোল! আর এ গোলেই শেষ পর্যন্ত ফয়সালা হয়েছে কারা আফ্রিকার সেরা দল, আলজেরিয়া।

এক পাশে সাদিও মানে অন্য পাশে রিয়াদ মাহরেজ। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের দুই তারকা। দেশের হয়ে তাঁরা মুখোমুখি হয়েছিলেন আফ্রিকান কাপ অব নেশনসের ফাইনালে। ইউরোপিয়ান লিগে খেলা বেশ ভালো কিছু ফুটবলারই ছিল দুই দলে। কিন্তু ফাইনালটা মনের মতো হয়নি। নিরপেক্ষ দর্শকদের কাছে কালকের ফাইনালে মনে রাখার মতো স্মৃতি একটাই—কাপ অব নেশনস ফাইনালের ইতিহাসে দ্রুততম গোল। আর সেটিও অদ্ভুত এক গোল!

বাঁ প্রান্ত দিয়ে একক প্রচেষ্টায় বল নিয়ে ঢুকছিলেন আলজেরিয়া স্ট্রাইকার বাগদাদ বোনেদজা। বক্সের ঠিক সামনে থেকে শট নেন গোলপোস্ট তাক করে। সেনেগাল ডিফেন্ডার সালিফ সানের পায়ে লেগে বলটি বেশ উঁচু দিয়েই ভাসতে ভাসতে গোলরক্ষককে টপকে আশ্রয় নেয় জালে! টুর্নামেন্টের ফেবারিট আলজেরিয়ার জন্য ফাইনালে এটুকুই যা সুখস্মৃতি। এরপর ম্যাচে প্রায় সারা সময়ই শরীর নির্ভর ফুটবল খেলেছে দুই দল। সেনেগালও কম যায়নি। তারাও শরীর নির্ভর ফুটবলই খেলেছে। দলটির দুর্ভাগ্য মাঠের রেফারি পেনাল্টি থেকে সমতায় ফেরার সুযোগ দিলেও তা বাতিল করে দিয়েছে ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারি (ভিএআর)।

৬০ মিনিটের সেনেগাল খেলোয়াড়ের ক্রস থেকে বক্সে ‘হ্যান্ডবল’ করেন আলজেরিয়ার গুয়েদিয়ারা। ভিডিও রিপ্লেতে দেখা গেছে তাঁর আসলে কিছুই করার ছিল না। মাঠের রেফারি পেনাল্টির বাঁশি বাজালেও ভিএআর তা বাতিল করে দেয়। শেষ পর্যন্ত অদ্ভুত সে গোলেই ২৯ বছর পর নেশনস কাপের দ্বিতীয় শিরোপাজয় নিশ্চিত করে আলজেরিয়া। আর সেনেগালের জন্য নেশনস কাপ হতাশাই হয়ে রইল। এ পর্যন্ত দুবার ফাইনালে উঠেও শিরোপার দেখা পেল না দলটি। ২০০২ সালে সেনেগালের অধিনায়ক হিসেবে ফাইনাল খেলেছিলেন দলটির বর্তমান কোচ আলিউ সিসে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


এই বিভাগের আরো

%d bloggers like this: